৫৬’তে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় | শিক্ষা

৫৬'তে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় | শিক্ষা

<![CDATA[

পাহাড় আর সবুজ বৃক্ষরাজিতে আচ্ছাদিত অনিন্দ্য সৌন্দর্যের ক্যাম্পাস চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়। একুশ শত একরের আয়তন নিয়ে এটি দেশের সর্ববৃহৎ বিদ্যাপিঠ, যা প্রকৃতির এক অনন্য দান।

গৌরবময় ৫৫ বছর পাড়ি দিয়ে বৃহস্পতিবার (১৮ নভেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়টি পা রেখছে ৫৬ বছরে। আর এ নিয়ে নানা কর্মসূচি হতে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

সকাল সাড়ে ১০টায় চবির শহীদ মিনার থেকে আনন্দ শোভাযাত্রার মধ্য দিয়ে শুরু হবে বিশ্ববিদ্যালয় দিবসের কার্যক্রম। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের জারুল তলায় অনুষ্ঠিত হবে আলোচনা সভা। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে থাকবেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাসান মাহমুদ।

বেলা ১১টায় কেক কাটা ও সাড়ে ১১টায় প্রবন্ধ উপস্থাপন করবেন কলা ও মানববিদ্যা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ মহীবুল আজিজ। বেলা ১২টায় আলোচনা সভা ও স্মৃতিচারণ এবং বিকেল ৩টায় অনুষ্ঠিত হবে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।

দেশের বৃহত্তম এ বিশ্ববিদ্যালয়টি আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে ১৯৬৬ সালের ১৮ নভেম্বর। চারটি বিভাগ, সাত জন শিক্ষক ও ২০০ শিক্ষার্থী নিয়ে শুরু হওয়া এ বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে নয়টি অনুষদ, ৪৮টি বিভাগ ও ছয়টি ইনস্টিটিউট রয়েছে। 

আরও পড়ুন: ৩০ হাজার টাকায় প্রক্সি দিতে এসে ববি’র ছাত্রলীগ কর্মী গ্রেপ্তার

বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় ৯শ শিক্ষক ও ২৮ হাজার শিক্ষার্থী রয়েছেন। বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধে এ বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন শিক্ষক, ১২ জন শিক্ষার্থীসহ তিন জন কর্মকর্তা ও কর্মচারি শহীদ হন। বিশ্ববিদ্যালয় দিবস পালনের মাধ্যমে তাদের স্মরণ করতে চান সবাই।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয় দিবস উপলক্ষে চবি সেজেছে বর্ণিল সাজে। ক্যাম্পাসকে সাজানো হয়েছে নানা রঙে। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন, স্মরণ চত্বর, শহীদ মিনার, রেল স্টেশন ছাড়াও সেজেছে পুরো ক্যাম্পাস। এছাড়া আবাসিক হলগুলো সাজানো হয়েছে আলোকসজ্জায়।

প্রসঙ্গত, ১৯৬৬ সালের ১৮ নভেম্বর চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা কার্যক্রম শুরু হওয়ায় দিনটি স্মরণীয় করে রাখতে প্রতি বছর এ দিনটিকে ‘চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় দিবস’ হিসেবে পালন করা হয়।

]]>

সূত্র: সময় টিভি

Like
Like Love Haha Wow Sad Angry
Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *