আবারও এলপিজি’র দাম বাড়ার আশঙ্কা | বাণিজ্য

আবারও এলপিজি’র দাম বাড়ার আশঙ্কা | বাণিজ্য

<![CDATA[

দেশের বাজারে তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাস বা এলপিজি’র দাম বাড়ার গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। এর কারণ হিসেবে বলা হচ্ছে, সৌদি আরামাকো নভেম্বর মাসের জন্য প্রোপেন ও বিউটেনের দাম নির্ধারণ। সেই দামের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে দেশের বাজারে ভোক্তাপর্যায়ে এলপিজির মূল্য সমন্বয় করে বৃহস্পতিবার (৪ নভম্বের) নতুন নির্দেশ দেবে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন।

গত সেপ্টেম্বরের চেয়ে দেশের বাজারে ভোক্তা পর্যায়ে বেসরকারি তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের (এলপিজি) ১২ কেজির সিলিন্ডারের দাম ২২৬ টাকা বাড়িয়ে ১ হাজার ২৫৯ টাকা নির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি)। কারণ, প্রোপেন ও বিউটেনের দামও বেড়েছিল সেপ্টেম্বরের তুলনায়।

নভেম্বরের জন্য সৌদি আরামকো প্রতি টন প্রোপেনের দাম নির্ধারণ করেছে ৮৭০ ডলার। গত মাসে এই দাম ছিল ৮শ’ ডলার। অর্থাৎ এক মাসের ব্যবধানে একটনে ৭০ ডলার বেড়েছে প্রোপেনের দাম।

দাম বাড়ানো হয়েছে বিউটেনেরও। ৩৫ ডলার বাড়িয়ে প্রতি টন বিউটনের দাম ধার্য করা হয়েছে ৮৩০ ডলার। আন্তর্জাতিক বাজারে বর্তমানে এই পণ্য দু’টির মূল্য এখন রেকর্ড সর্বোচ্চে। তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাস বা এলপিজি তৈরিতে অপরিহার্য কাঁচামাল প্রোপেন ও বিউটেনের দাম।

আরও পড়ুন- শেয়ারবাজারে আবারও দরপতন, ভেঙেছে বিগত পাঁচ মাসের রেকর্ড

সৌদি আরামাকো কোম্পানির মূল্য তালিকায় দেখা যাচ্ছে, গত জনু থেকে লাগাতার বাড়ছে প্রোপেন ও বিউটেনের দাম। সেপ্টেম্বরে প্রতি টন প্রোপেন ও বিউটেন বিক্রি হয়েছে ৬৬৫ ডলারে। অক্টোবরে এসে এক লাফে বেশ খানিকটা বেড়ে যায়।

গত জুন মাসে বিশ্ববাজারে এক টন প্রোপেন বিক্রি হয়েছে ৫৩০ ডলারে আর বিউটেনের দাম ছিল ৫২৫ ডলার। এরপর থেকেই আন্তর্জাতিক বাজারে বাড়তে থাকে এলপিজি তৈরিতে অপরিহার্য এই দু’টি কাঁচামালের দাম।

]]>

সূত্র: সময় টিভি

Like
Like Love Haha Wow Sad Angry
Spread the love

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *